নড়াইলে সাংবাদিক মিল্টনের উপর হামলা, গ্রেফতার  দাবিতে বিএমএসএস’র মানববন্ধন

মোঃ মাসুদ রানা : বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক সোসাইটি (বিএমএসএস) -এর কেন্দ্রীয় ত্রাণ ও পূনর্বাসন সম্পাদক নড়াইলের সাংবাদিক মিল্টন শেখের উপর হত্যার উদ্দেশ্যে হামলাকারী সিংগাশোলপুর ইউনিয়নের বড়গাতি গ্রামের সন্ত্রাসী, চাদাবাজ, মাদক ব্যবসায়ী ও একাধিক মামলার আসামী মনিরসহ বাকি সকল আসামিদের বিচার, পলাতকদের গ্রেফতার এবং কঠোর শাস্তির দাবিতে এক বিশাল মানববন্ধন ও প্রতিবাদ কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক সোসাইটি (বিএমএসএস) -এর নড়াইল জেলায় অবস্থানরত সাংবাদিকদের আয়োজনে আজ (২০ অক্টোবর) বৃহস্পতিবার বিকালে নড়াইলের সদর থানাধীন সিংগা শোলপুর ইউনিয়ন পরিষদের সামনে উক্ত মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক সোসাইটির প্রতিষ্ঠাতা ও চেয়ারম্যান খন্দকার আছিফুর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশে প্রধান বক্তা হিসাবে বক্তব্য রাখেন সংগঠনের মহাসচিব ও দৈনিক ফুলতলা প্রতিদিনের সম্পাদক মোঃ সুমন সরদার।
মানববন্ধনে সংগঠনের কেন্দ্রীয় ও খুলনা বিভাগীয় নেতৃবৃন্দসহ ঢাকা, খুলনা, যশোর ও নড়াইলের প্রায় ১০০ জন সাংবাদিক উপস্থিত ছিলেন।

মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন কেন্দ্রীয় নেতা নড়াইলের প্রবীণ সাংবাদিক ও প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি সাথী তালুকদার, কেন্দ্রীয় নেতা মোঃ রফিকুল ইসলাম, রেজোয়ান রাজা, খন্দকার আনিসুর রহমান, তরিকুল ইসলাম, মোঃ জামির, ভৈরব চিত্রা রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি আমিনুর রহমান ও সন্ত্রাসী হামলার শিকার ভিকটিম মিল্টন শেখ।

আরো বক্তব্য রাখেন, আনন্দ টেলিভিশনের যশোর জেলা প্রতিনিধি ও খুলনা বিভাগীয় সাধারণ সম্পাদক শফিকুল ইসলাম, নওয়াপাড়া প্রেসক্লাবের দপ্তর সম্পাদক ও সংগঠনের খুলনা বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক শাহীন আহমেদ, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক ও মাইটিভির যশোর জেলা প্রতিনিধি শরিফুল ইসলাম, আইসিটি সম্পাদক নাসিম রেজা, ঢাকার সাংবাদিক রাজিয়া সুলতানা তূর্ণা প্রমূখ।

সাংবাদিকদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, সুমি খান, মোঃ সাহিদ হোসেন, তামিম আহম্মেদ মনির, মোঃ হান্নান শেখ, কামাল, লিটন, মো: নুরুন্নবী সামদানী, রবিউল ইসলাম, বিশারত হোসেন, সৈয়দ রমজান সহ খুলনা, যশোর ও নড়াইলের প্রায় ১০০ জন সাংবাদিকবৃন্দ।

এ সময় সভাপতির বক্তব্যে বিএমএসএস চেয়ারম্যান খন্দকার আছিফুর রহমান বলেন, সাংবাদিক মিল্টনের উপর হামলাকারী সন্ত্রাসীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করছি। আসামীরা জামিনে এসে ভিকটিম সাংবাদিক মিল্টনকে হুমকি দিচ্ছে। মিল্টনের যদি আর সামান্য ক্ষতি হয়; তাহলে সারাদেশে কাফনের কাপড় পরে কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে।
তিনি সকল আসামি গ্রেফতার ও তাদের কঠোর শাস্তি দাবি করেন।

মানববন্ধনের প্রধান বক্তা ও সংগঠনের মহাসচিব মো: সুমন সরদার সাংবাদিক মিল্টনের উপর সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে বলেন, বিএমএসএস সকল নির্যাতিত ও নিপীড়িত সাংবাদিকদের পাশে ছিলো- আছে। ঠিক মিল্টনের পাশেও আছে থাকবে।
তিনি হামলাকারী সন্ত্রাসী মনির সহ সকল আসামীদের গ্রেফতার এবং দৃষ্টান্তমূলক কঠোর শাস্তির দাবি জানান। নাহলে কঠোর আন্দোলন কর্মসূচির হুশিয়ারি দেন।

ভিকটিম সাংবাদিক মিল্টন শেখ বলেন, সন্ত্রাসী, চাদাবাজ, মাদক ব্যবসায়ী ও একাধিক মামলার আসামি মনিরসহ তার সন্ত্রাসীবাহিনী বার বার বিভিন্ন ভাবে হত্যার হুমকি সহ আবারও প্রাণ নাশের হুমকি দিয়ে আসছে। তার ছোট ভাই ফরেষ্ট অফিসার মো: আব্দুল্লাহ্ শেখ এর কাছে ৫ লক্ষ টাকা চাদা দাবি করে এবং গত (২৯ সেপ্টেম্বর) সিংগাশোলপুর বাজারের কৃষিবিপণন কেন্দ্র থেকে রাতে বাড়ি ফেরার পথে বিধানের মোড়ের আগে নির্জন স্থান থেকে অস্ত্র ঠেকিয়ে সাংবাদিক মিল্টন শেখ এর বড় ভাই মেহেদি শেখ এর কাছ থেকে ১ লক্ষ ৫০ হাজার টাকা ছিনিয়ে নেয়। এসময় স্থানীয় ও স্বজনদের জানালে তাৎক্ষণিক স্থানীয় এবং স্বজন’রা ছিনতাইকারী মনিরসহ তার সঙ্গীদের খুঁজতে গেলে একই দিন রাতে ছিনতাইকারী সন্ত্রাসীরা সাংবাদিক মিল্টন শেখকে অাতর্কিত ভাবে দেশীয় অস্ত্র রামদা, সেন-দা দিয়ে এলোপাতাড়ি ভাবে হত্যার উদ্দেশে মাথায় সহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে কুপিয়ে জখম করে। এসময় সাংবাদিক মিল্টনের আর্তচিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে আসামি’রা পালিয়ে যায়। গুরুতর আহত অবস্থায় সাংবাদিক মিল্টনকে নড়াইল সদর হাসপাতালে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করে।
পরে অবস্থার আরো অবনতী হলে আবারও সাংবাদিক মিল্টনের অপারেশনের জন্য গাজী মেডিকেল হাসপাতালে নিয়ে মাথায় ৪৮টি সেলাই এবং পায়ে ৭ টা সেলাই করে অপারেশন সম্পন্ন করেন।
পরে গত (১ অক্টোবর) শনিবার সাংবাদিক মিল্টনের ছোট ভাই আব্দুল্লাহ্ শেখ বাদি হয়ে নড়াইল সদর থানায় একটি চাঁদাবাজি ও হত্যা চেষ্টা মামলা দায়ের করেন, নড়াইল সদর উপজেলার সিংগাশোলপুর ইউনিয়নের বড়গাতি গ্রামের মনির শিকদার (৩৫), পিতা-মৃত, আলতাব শিকদার ও একই ইউনিয়নের শোলপুর গ্রামের আব্দুল মান্নান মোল্যা (৪৫), পিতা-হোসেন মোল্যাসহ আরো অজ্ঞাত আসামি করে মামলা দায়ের করেন, যার মামলা নং -০১।

তিনি বলেন, আবারও সন্ত্রাসী মনিরগং’রা গত (১৬ অক্টোবর) মামলা তুলে নিতে হুমকি ধামকী প্রদান করলে জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে সাংবাদিক মিল্টন নড়াইল সদর থানায় একটি জিডি করেন, যার জিডি নং-৬৫১।
তিনি তার নিজের ও পরিবারের নিরাপদ নিয়ে শঙ্কিত।

মানববন্ধনে বক্তারা সাংবাদিক মিল্টন শেখ ও তার পরিবারের নিরাপত্তা নিশ্চিতের দাবী জানান এবং প্রশাসনের হস্তক্ষেপে আসামীদের গ্রেফতার সহ কঠোর শাস্তির দাবি করেন।

মানববন্ধনে সাংবাদিকবৃন্দ ছাড়াও সিংগাশোলপুরের শতাধিক প্রবীণ মুরব্বি ও এলাকাবাসী অংশগ্রহণ করেন। তারা সন্ত্রাসী ও চাঁদাবাজ মুক্ত এলাকা গড়তে প্রশাসনের ও সাংবাদিকদের ভূমিকা গ্রহনের দাবী জানান।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *